আবু ত্ব-হার সন্ধান চাই মিজানুর রহমান আজহারী!

 


তরুণ ইসলামীক বক্তা ও বিশিষ্ট দাঈ আবু ত্ব-হা মুহাম্মাদ আদনানের সন্ধান চেয়ে মিজানুর রহমান আজহারী ফেসবুকে এক স্টাটাস দিয়েছেন। স্টাটাসটি হুবহু তুলে ধরা হলো!


এক সপ্তাহ হয়ে গেল। একজন তরুণ দ্বা’য়ী তার দুজন সফরসঙ্গী এবং ড্রাইভার সহ বিলকুল গায়েব। কী আজিব ঘটনা! এমনকি গাড়ীটারও সন্ধান কেউ দিতে পারছেনা। ব্যাপারটা বেশ রহস্যজনক এবং উদ্বেগের। তাদের সন্ধান পাওয়ার সম্ভাবনাও যেন—  ক্ষীণ থেকে ক্ষীণতর হচ্ছে।


গুম একটি মানবতাবিরোধী অপরাধ। এটি মানবাধিকার লঙ্ঘনের চরম ও নৃশংসতম অপরাধগুলোর অন্যতম। গুম-সংস্কৃতি চূড়ান্তভাবে আইনের শাসনকে বিপন্ন করে তোলে এবং একটি রাষ্ট্রকে অকার্যকর অবস্থার দিকে নিয়ে যায়।

 


গুমের মিছিল এভাবে লম্বা হতে থাকলে, আন্তর্জাতিক অঙ্গণে বাংলাদেশের ভাবমূর্তি আরো ক্ষুন্ন হবে। তাই, আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর উচিত— প্রতিটি গুমের ঘটনার নিরপেক্ষ এবং দ্রুত তদন্ত নিশ্চিত করা।


মুসলিম রাষ্ট্রে একজন অমুসলিমেরও সামাজিক নিরাপত্তা রয়েছে। প্রাণ রক্ষা করা মাক্বাসিদে শারি’আর (শারি’আর লক্ষ্য ও উদ্দেশ্য) অন্যতম লক্ষ্য। একজন নিরপরাধ মানুষের প্রাণনাশ গোটা মানবমন্ডলীর প্রাণনাশের সমতুল্য।


রাষ্ট্র তার জনগণের মৌলিক অধিকার সুরক্ষায় প্রতিশ্রুতিবদ্ধ। তাই, রাষ্ট্রের সাংবিধানিক দায়িত্ব হচ্ছে— তাদেরকে খুঁজে বের করা।


আবু ত্বহা আদনান সালামাতে ফিরে আসুক। গুম এবং হয়রানির অবসান ঘটুক।

মন্তব্য করুন

নবীনতর পূর্বতন